ডিজিটাল ফ্যাসিবাদ


Thursday 01 January 70

ডিজিটাল ফ্যাসিবাদ, ফরহাদ মজহার; প্রথম প্রকাশ: ফেব্রুয়ারি ২০১২। জাগৃতি প্রকাশনী, ঢাকা। পৃষ্ঠা ১৪৪; মূল্য: ২২৫/=

বাংলাদেশ নামক যে সত্তাটি একটি সশস্ত্র মুক্তিসংগ্রামের  মধ্য দিয়ে জন্মলাভ করেছে, চল্লিশ বছর পেরিয়ে গেলেও তা আজ অবধি গণ আকাংখার প্রতিনিধিত্বশীল চরিত্র ধারণ করে নি। একদিকে গণতান্ত্রিক রাষ্ট্র গঠনের অসম্পূর্ণতা, অন্যদিকে স্বাধীন ও সার্বভৌম অবস্থান বজায় রাখার নিদারুণ ব্যর্থতা রাষ্ট্রকে এমন স্তরে নামিয়ে এনেছে যে বিদ্যমান কাঠামোতে এখন এর অস্তিত্বে টিকিয়ে রাখাই প্রায় অসম্ভব হয়ে পড়েছে।

জাতীয় বিভক্তি, সামাজিক বিভাজন, সাংস্কৃতিক অসহিষ্ণুতার উপাদানসমূহ একত্রিত হয়ে চলমান আঞ্চলিক ও আন্তর্জাতিক স্বার্থের ছকে এমন একটা বিপদজনক রাজনৈতিক সংঘাতের দিকে দেশটিকে টেনে নিয়ে যাচ্ছে, যে খাদ থেকে উঠে না আসলে রাজনৈতিক জনগোষ্ঠী হিসাবে আমাদের সব সম্ভাবনাই তিরোহিত হবে অচিরে।

ফলে আঞ্চলিক বা আন্তর্জাতিক পরাশক্তির বেঁধে দেয়া ছকে বাংলাদেশের রাজনীতিকে সেক্যুলার বনাম ইসলামের লড়াই আকারে যে বা যারাই সাজাতে চাইছেন তাদের উদ্দেশ্য, সাম্রাজ্যবাদী পরিকল্পনা আর নিওলিবারেল বিশ্বব্যবস্থার অন্তর্গত চাহিদার আলোকে বর্তমানে ফ্যাসিবাদী ক্ষমতার উত্থানকে ফরহাদ মজহার চিহ্নিত করতে চেয়েছেন। এই সঙ্গে এই বিপদজনক বিভাজন এড়িয়ে জনগণের লড়াইকে সংগঠিত করার পথ এবং পদ্ধতিও তার অন্বিষ্ট।

সূচিপত্র


সাংস্কৃতিক পরিসরে আইনী খড়গ

  • ইতিহাস, সামাজিক বিতর্ক ও আদালতের এখতিয়ার।
  • ভাষা ব্যবহারের ওপর আইনী খরবদারী অথবা ফ্যাসিবাদের নতুন ধরন।
  • আসুন শহীদ মিনারকে একটি মসজিদ অথবা মন্দির পরিণত করি।

গণমাধ্যম, ফ্যাসিবাদ ও আদালত অবমাননা

  • ফ্যাসিবাদ এবং সংবাদপত্রের স্বাধীনতা।
  • ডিজিটাল ফ্যাসিবাদ।
  • মাহমুদুর রহমান ও দৈনিক আমার দেশ।
  • আদালত অবমাননা।
  • নাগরিক অধিকার, সংবিধান ও আদালত অবমাননা।

বিচারিক এখতিয়ার বনাম সংবিধান ও আইন প্রণয়ন

  • যদি লেগে যায়।
  • বিচারকরা কি ট্রেড ইউনিয়ন ধরনের সমিতি ও বিক্ষোভ মিছিল করতে পারেন?।
  • চাই গণমানুষের পক্ষে আরো সাহসী বিচারক।
  • পঞ্চম সংশোধনী বাতিল?।
  • বিচার বিভাগ জাতীয় সংসদ?।
  • ‘সংবিধান’: ছেঁড়া ত্যানা রিফু করার কুতর্ক।

রাষ্ট্র ও রাজনীতিতে ফ্যাসিবাদ

  • মানবাধিকার-বিরোধী ফ্যাসিবাদী শক্তিকে রুখে দিতে হবে।
  • দল বেঁধে পিটিয়ে ও কুপিয়ে মানুষ মারা।
  • আমাদের এখনকার কর্তব্য।

 


৫০০০ বর্ণের অধিক মন্তব্যে ব্যবহার করবেন না।